৮৯ বছর পর এমন পরাজয় দেখল অস্ট্রেলিয়া!

উইন্ডিজের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজে হোয়াইটওয়াশ হওয়ার কথা ছিল অস্ট্রেলিয়ার। চতুর্থ ম্যাচে আন্দ্রে রাসেল অতি সাবধানী না হলে সেটা হয়তো হয়েও যেত। আজ পঞ্চম টি-টোয়েন্টিও ১৬ রানে জিতে নিয়েছে উইন্ডিজ। ৪-১ ব্যবধানে সিরিজ হার সাম্প্রতিক সময়ে দেখেনি অস্ট্রেলিয়া। সর্বশেষ ৮৯ বছর আগে ১৯৩২ সালে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ইংল্যান্ডের কাছে তারা এই স্বাদ পেয়েছিল! এর মাধ্যমে আবারও প্রমাণিত হলো, ক্যারিবীয়রাই টি-টোয়েন্টির রাজা।

সেন্ট লুসিয়ার ড্যারেন স্যামি জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ধ্বংসাত্মক সূচনা এনে দেন ওপেনার এভিন লুইস। ৪০ রানে তাদের প্রথম উইকেটের পতন হয়। ফিরে যান ১৬ বলে ১২ রান করা আন্দ্রে ফ্লেচার। এরপর ‘দ্য ইউনিভার্স বস’ ক্রিস গেইল জ্বলে উঠেছিলেন। তবে ৭ বলে ২ চার ২ ছক্কায় ২১ রান করে তিনি প্যাভিলিয়নে ফিরেন। অধিনায়ক নিকোলাস পুরান করেন ১৮ বলে ৩১ রানের ইনিংস। আর ব্যাটিং তাণ্ডব চালিয়ে এভিন লুইস করেন ৩৪ বলে ৭৯। তার ইনিংসে ছিল ৪টি চার ও ৯টি ছক্কা। ক্যারিবীয়দের সংগ্রহ দাঁড়ায় ৮ উইকেটে ১৯৯।

জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে দলীয় ৯ রানেই জস ফিলিপেকে (০) হারায় অস্ট্রেলিয়া। এরপর তারা আর ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি। অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ সর্বোচ্চ ২৩ বলে ৩৪ রান করেন। মিচেল মার্শ (৩০) ছাড়া আর কোনো ব্যাটসম্যান ত্রিশের ঘর ছুঁতে পারেননি। ব্যাট হাতে মাত্র ১ রান করলেও বল হাতে ঝলসে ওঠেন আন্দ্রে রাসেল। ৪ ওভারে ৪৩ রান দিয়ে নেন ৩ উইকেট। শেলডন কটরেলও ২৮ রানে ৩ উইকেট নিয়েছেন। শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯ উইকেটে ১৮৩ রানে আটকে যায় অজিদের ইনিংস। ১৬ রানের জয় পায় উইন্ডিজ। বিধ্বংসী ইনিংস খেলে ম্যাচসেরা হয়েছেন এভিন লুইস।

Leave A Reply

Your email address will not be published.