১০২ টাকায় বাড়ি কিনুন ইতালিতে!

গোলাপি-লালচে রঙের দোতলা বাড়ি। সূর্যাস্তের সময় জ্বলজ্বল করে। রয়েছে আঙিনা, পাম গাছের বাগান, কমলা গাছ, ফুলশোভিত সিঁড়ি, সিসিলীয় ধাঁচের ছাদ ও বারান্দা। বেশিরভাগ বাড়িতেই সাজানো রয়েছে মনোরম উদ্যান। বারান্দা থেকে দেখা যায় সাগর আর কাছেই সৈকত। এমন একটি সুন্দর বাড়ির স্বপ্ন দেখেন অনেকেই। কিন্তু নিজের সাধ্যের মধ্যে সে স্বপ্ন কি পূরণ করা সম্ভব? হুম, সম্ভব! বিশ্বের অন্যতম সুন্দর ও উন্নত দেশ ইতালিতে এমন বাড়ি বিক্রি হচ্ছে এক ইউরো অর্থাৎ বাংলাদেশি ১০২ টাকায়। এমন খবরে রীতিমতো অবাক হলেও ঘটনা সত্য। ইতালিতে এক ইউরোতে কেনা যাচ্ছে বাড়ি এমন খবর জানিয়েছে সিএনএন।

জানা যায়, ইতালির সিসিলির কাস্তিগলিয়োনে দ্য সিসিলিয়া শহরে পূর্ব উপকূলে সাগর সৈকতের কাছে চিক তায়োরমিনার মাউন্ট ইতনার শহরে ৯০০ এর বেশি পরিত্যক্ত বাড়ি রয়েছে। এসব বাড়ির বেশির ভাগই শহরের পুরোনো অংশে। বাড়িগুলোর অর্ধেক ধ্বংস হয়ে গেছে। এ কারণে প্রতীকী দাম ১ ইউরো দরে বিক্রি হচ্ছে এসব বাড়ি। একটি গোটা বাড়ি কেনা যাচ্ছে বাংলাদেশি টাকায় ১০০ বা ১০২ টাকায়।

সেখানকার মেয়র আন্তোনিও কামারদা ওই গ্রামে নতুন জনবসতির প্রকল্প নিয়েছেন। ঊনবিংশ শতাব্দীর শুরুর দিকে গ্রামটির জনসংখ্যা ছিল ১৪ হাজার। তবে বর্তমানে তা কমে ৩ হাজারে পৌঁছেছে। মেয়র আন্তোনিও কামারদা বলেন, আমাদের প্রচুর ঐতিহ্যবাহী স্থাপত্য শিল্প রয়েছে। অনেকে এসব বাড়ি পরিত্যক্ত হিসেবে রেখে গেছে। তাই বাড়িগুলো এখন নামমাত্র মূল্যে বিক্রি করে দেওয়া হচ্ছে।

ইতালির বিভিন্ন শহরে প্রায় ২ লাখ ৬০ হাজার বাংলাদেশি বসবাস করছেন। ইতালিতে বাংলাদেশের বিভিন্ন মালিকানাধীন দোকান, রেস্টুরেন্ট রয়েছে। অনেক সফল বাংলাদেশিও রয়েছে, যারা প্রবাসে এসেও দেশের সুনাম অর্জন করেছে।

আরও পড়ুন
Loading...