রামেকে আরও ৮ জনের মৃত্যু

রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের করোনা ইউনিটে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও আট জনের মৃত্যু হয়েছে। তারা সবাই করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন।

সোমবার (১১ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ৮টা থেকে মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ৮টার মধ্যে তারা মারা যান। এই এক দিনে নওগাঁর তিনজন এবং রাজশাহী, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, নাটোর, সিরাজগঞ্জ ও টাঙ্গাইলের একজন করে মারা গেছেন।

আজ মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) রামেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শামীম ইয়াজদানী এসব তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় রামেক হাসপাতালে করোনা সংক্রমণে কোনো রোগী মারা যাননি। তবে করোনার উপসর্গ নিয়ে আটজন মারা গেছেন। এদের মধ্যে পাঁচজন পুরুষ এবং তিনজন নারী রয়েছেন।

গত এক দিনে হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যাকেন্দ্রে (আইসিইউ) মৃত্যু হয়েছে পাঁচজনের। এ ছাড়া ১৭ নম্বর ওয়ার্ডে দুজন এবং ৩ নম্বর ওয়ার্ডে একজন মারা গেছেন।

এদিকে ১৯২ শয্যার রামেক হাসপাতালের করোনা ইউনিটে সোমবার সকাল ৯টা পর্যন্ত রোগী ভর্তি ছিলেন ৮৪ জন। এক দিন আগেও এই সংখ্যা ছিল ১০৪। বর্তমানে রাজশাহীর ৩৫ জন, চাঁপাইনবাবগঞ্জের ১৬ জন, নাটোরের ১১ জন, নওগাঁর পাঁচজন, পাবনার ১২ জন, কুষ্টিয়ার চারজন এবং মেহেরপুরের একজন হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন।

হাসপাতালে করোনা নিয়ে ভর্তি রয়েছেন ১২ জন। করোনার উপসর্গ নিয়ে ভর্তি রয়েছেন ৫১ জন। করোনা ধরা পড়েনি ভর্তি ২১ জনের। এ ছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় ভর্তি হয়েছেন ১২ জন। এই এক দিনে হাসপাতাল ছেড়েছেন ১৭ জন।

এর আগে, সোমবার রামেক হাসপাতাল ল্যাবে ৬৪ জনের নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এর মধ্যে করোনা ধরা পড়েছে তিনজনের নমুনায়। একই দিনে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ ল্যাবে নমুনা পরীক্ষা হয়েছে আরও ৩৭৫ জনের। এর মধ্যে করোনা ধরা পড়েছে ১০ জনের নমুনায়। পরীক্ষার অনুপাতে রাজশাহীর ২ শতাংশ, নাটোরের ১ দশমিক ৩৩ শতাংশ, জয়পুরহাটের ২ দশমিক ৭৮ শতাংশ এবং চাঁপাইনবাবগঞ্জের ১০ দশমিক ৮৭ শতাংশ নমুনায় করোনা শনাক্ত হয়েছে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.