যমুনার পানি বৃদ্ধি অব্যাহত, পানিবন্দী ২৫ হাজার মানুষ

সিরাজগঞ্জে যমুনা নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত রয়েছে। এ কারণে প্লাবিত হচ্ছে নতুন নতুন এলাকা। এরই মধ্যে পানিবন্দী হয়ে পড়েছে জেলার বিস্তীর্ণ চরাঞ্চল ও নিম্নাঞ্চলের অন্তত ২৫ হাজার মানুষ। বুধবার (১৮ আগস্ট) সকালে সরেজমিনে গিয়ে এই চিত্র দেখা যায়।

জানা গেছে, গত ২৪ ঘণ্টায় ২৩ সেন্টিমিটার বৃদ্ধি পেয়ে বুধবার (১৮ আগস্ট) সকালে সিরাজগঞ্জ শহর রক্ষা বাঁধ পয়েন্টে যমুনা নদীর পানি বিপদসীমার ৭৮ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। জেলার কাজিপুর মেঘাইঘাট পয়েন্টেও অস্বাভাবিক হারে বাড়ছে নদীর পানি।

এদিকে পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় জেলার চরাঞ্চল ও নিম্নাঞ্চলে প্লাবিত হচ্ছে নতুন নতুন এলাকা। এরই মধ্যে পানিবন্দী হয়ে পড়েছে এসব এলাকার অন্তত ২৫ হাজার মানুষ। বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে আমন ধানের বীজতলা, শাক-সবজিসহ বিভিন্ন ফসল। এতে বিপাকে পড়েছেন কৃষকেরা। তবে বন্যা কবলিত এলাকায় এখনো শুরু হয়নি ত্রাণ তৎপরতা।

সিরাজগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ডের শহর রক্ষা বাঁধ পয়েন্টের দায়িত্বে থাকা গেজ মিটার (পানি পরিমাপক) আব্দুল লতিফ আরটিভি নিউজকে জানান, মঙ্গলবার (১৭ আগস্ট) সকাল ৬টা থেকে বুধবার (১৮ আগস্ট) সকাল ৬টা পর্যন্ত যমুনা নদীর পানি শহর রক্ষা বাঁধ পয়েন্টে ২৩ সেন্টিমিটার বৃদ্ধি পেয়ে বিপদসীমার ৭৮ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

সিরাজগঞ্জ জেলা ত্রাণ ও পুনর্বাসন কর্মকর্তা আব্দুর রহিম আরটিভি নিউজকে জানান, বন্যা কবলিত এলাকায় ত্রাণ তৎপরতা চালানোসহ সকল প্রস্তুতি রয়েছে জেলা প্রশাসনের। নির্দেশনা পেলেই ত্রাণ তৎপরতা শুরু করা হবে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.