বঙ্গমাতার কাছে সাহায্য চেয়ে কেউ খালি হাতে ফিরেনি: নানক

বঙ্গবন্ধুর গুণাবলীর শতভাগই আমরা বঙ্গমাতা ফজিলাতুন নেছা মুজিবের মধ্যে দেখতে পাই বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক৷ তিনি বলেন, বেগম মুজিবের কাছে সাহায্য চেয়ে কেউ কখনো খালি হাতে ফিরে যেত না।

রবিবার (৮ আগস্ট) বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে বঙ্গমাতা ফজিলাতুন নেছা মুজিবের জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে এক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন। আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপ-কমিটি এ আলোচনা সভার আয়োজন করে।

জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান নেতাকর্মীর পাশাপাশি সাধারণ মানুষকেও প্রাণ উজাড় করে ভালোবাসতেন। বঙ্গবন্ধুর কর্মীবান্ধব সব গুণাবলী আমরা বেগম মুজিবের মধ্যে দেখতে পাই। দেশের স্বাধীনতা-সংগ্রামে বেগম মুজিবও বহু ত্যাগ-তিতিক্ষা করেছেন৷ দলীয় কর্মীদের সুখ-দুঃখের সঙ্গে ছিলেন তিনি। ছাত্র রাজনীতির সময়ও বেগম মুজিব তার পৈতৃক সম্পত্তির অর্জিত অর্থ দিয়ে বঙ্গবন্ধুকে সাহায্য করেছিলেন।

রাজনৈতিক কাজে টাকা-পয়সা দিয়ে সাহায্য সহযোগিতা করতে তিনি তার গহনা পর্যন্ত বিক্রি করেছেন। বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক জীবনে অনেক কঠিন পরিস্থিতিতে বেগম মুজিব পরামর্শ দিয়ে সহযোগিতা করেছেন।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষণের প্রেরণাদাত্রী ছিলেন বঙ্গমাতা ফজিলাতুন নেছা মুজিব। তিনি বঙ্গবন্ধুকে বিবেকের ওপর ভর করে বক্তৃতা করবার জন্য পরামর্শ দিয়েছিলেন। বঙ্গবন্ধুর পাশে বেগম মুজিবের মতো প্রজ্ঞাপন নারী থাকায় হয়তো ‘এবারের সংগ্রাম মুক্তির সংগ্রাম, এবারের সংগ্রাম স্বাধীনতার সংগ্রাম’ নামক মহাকাব্যের সৃষ্টি হয়েছে।

ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ উপ-কমিটির আহ্বায়ক এ কে এম রহমতউল্লাহর সভাপতিত্বে সভা পরিচালনা করেন সদস্য সচিব ও আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী।

সভায় আরও বক্তব্য রাখেন দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের, সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক, আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম প্রমুখ।

Leave A Reply

Your email address will not be published.