পটলের বীজ খেয়ে অজান্তেই নিজের যেসব উপকার করছেন

শীতের সবজি হিসেবে বেশ পরিচিত পটল। এই সবজিটি দিয়ে তৈরি করা হয়ে থাকে সুস্বাদু বিভিন্ন পদ। যা ছোট-বড় উভয়েরই বেশ পছন্দের। অনেকে পটলের খোসার ভর্তাও খেয়ে থাকেন। তবে পটল বা এর খোসা খাওয়া হলেও, বিপত্তি বাঁধে এর বীজ নিয়ে।

কারণ পটলের বীজ বেশ শক্ত হয়ে থাকে। তাই তা অনেকেই খেতে চান না। তাইতো পটল রান্নার সময় অনেকেই বীজগুলো ফেলে দেন। আবার অনেকেই বীজসহ পটল খেতে পছন্দ করেন। বিশেষ করে পটল ভাজার ক্ষেত্রে অনেকেই রেখে দেন বীজগুলো।

তবে জানলে অবাক হবেন যে, পটলের বীজ খেয়ে অজান্তেই আপনি আপনার শরীরের বিশাল উপকার করছেন। কীভাবে? চলুন জেনে নেয়া যাক-

>> বিজ্ঞানীরা বলছেন, পটলের বীজের কয়েকটি উপাদান রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। ফলে জ্বর-সর্দি-কাশিও কমে।

>> যারা কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যায় ভুগছেন, তাদের জন্যও উপকারী পটল ও এর বীজ। নিয়মিত পটল খেলে এই সমস্যা কিছুটা হলেও কমতে পারে।

>> পটলের বীজে থাকা উপাদানসমূহ রক্ত পরিশুদ্ধ করে। এতে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট থাকে। শরীরের দূষিত পদার্থ বের করতে পারে পটলের বীজ।

>> পটল কোলেস্টেরল ও রক্তে শর্করার মাত্রা কমায়। একই কাজ করে পটলের বীজও। এই বীজ শরীরে গেলে কোলেস্টেরল ও রক্তে শর্করার মাত্রা অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে থাকে।

>> হজমের সমস্যা কমাতেও পটল কার্যকরী। এজন্য বীজসহ পটল অল্প করে থেঁতো করে ধনেপাতার সঙ্গে মিশিয়ে নিন। অল্প পানিতে ভিজিয়ে রেখে দিনে ৩-৪ বার পান করুন। হজমের সমস্যা কমবে।

সূত্র: হেলথ বেনিফিটস টাইমস। 

Leave A Reply

Your email address will not be published.