ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে ঘরমুখো যাত্রীদের ভোগান্তি

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জের ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের সাইনবোর্ড মোড়ে যাত্রীদের উপচেপড়া ভিড় দেখা গেছে। গণপরিবহন না থাকায় যাত্রীদেরও ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে। রোববার সকাল সাড়ে ১০টায় এমন চিত্র দেখা গেছে। সড়কে গণপরিবহন কম থাকায় অতিরিক্ত ভাড়ায় মাইক্রোবাস, প্রাইভেটকার ও মোটরসাইকেলে করে যাত্রীরা গন্তব্যের পথে রওনা হচ্ছেন। কেউবা পিক-আপে করে রওনা হয়েছেন।

এসময় কুমিল্লার দাউদকান্দিতে যাওয়ার জন্য নাদিয়া আক্তার নামে একজন দেড়ঘণ্টা যাবৎ সাইনবোর্ড মোড়ে দাঁড়িয়ে ছিলেন। তিনি জানান, মোটরসাইকেলে দাউদকান্দি ৩০০ টাকা ভাড়া চায়। আর মাইক্রোতে ভাড়া চায় ৪৫০ টাকা।

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামের বাসিন্দা রুবেল হোসেন। চারদিন আগে শনিরআখড়ায় বোনের বাসায় বেড়াতে এসেছেন। আজ বাড়ি ফিরছেন। রুবেল বলেন, ‘দুই ঘণ্টা সাইনবোর্ডে অপেক্ষা করেও কোনোভাবে রওনা হতে পারিনি। বাইক চালকরা বেশি ভাড়া চায়।

এ বিষয়ে কাঁচপুর হাইওয়ে থানার ওসি মনিরুজ্জামান জানান, সারাদেশে লকডাউনের ঘোষণা আসায় যাত্রীদের চাপ বেড়ে গেছে। লকডাউন বাস্তবায়নে পুলিশ তৎপর রয়েছে বলেও জানান তিনি।

Leave A Reply

Your email address will not be published.