জাতিসংঘের কপ-২৬ সম্মেলন শুরু হচ্ছে আজ

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন থেকে শুরু করে অ্যান্ডোরার প্রধানমন্ত্রীসহ প্রায় ১২০ জন বিশ্বনেতার উপস্থিতিতে আজ রোববার স্কটল্যান্ডের গ্লাসগো শহরে শুরু হতে যাচ্ছে জাতিসংঘের কপ-২৬ জলবায়ু সম্মেলন। সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে এ কথা জানানো হয়েছে।

গোটা বিশ্বের নজর এখন গ্লাসগো’র স্কটিশ এক্সিবিশন সেন্টারে। বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রপ্রধান এবং বিশেষজ্ঞ প্যানেলসহ সম্মেলনে অন্তত ২৫ হাজার অতিথি থাকবেন এতে। সম্মেলনের শেষ দিন—১২ নভেম্বর পর্যন্ত অতিথিরা বৈশ্বিক জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ আলোচনা ও বিভিন্ন অনুষ্ঠানে অংশ নেবেন।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন সম্মেলনে থাকবেন জানালেও রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন এ সম্মেলনে থাকছেন না। বিবিসি বলছে—জলবায়ু পরিবর্তনকে অগ্রাধিকারের তালিকায় রাখেন না বলে পুতিন এ সম্মেলন এড়িয়ে গেছেন।

অন্যদিকে, চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংও সম্মেলনে হাজির হবেন না বলে ধারণা করা হচ্ছে।

বিশ্বনেতাদের পাশাপাশি বিশেষজ্ঞ এবং পরিবেশ আন্দোলনের প্রথিতযশা কর্মীরাও এতে অংশ নেবেন। ব্রিটিশ ইতিহাসবিদ ও লেখক স্যার ডেভিড অ্যাটেনবরোকে এবারের সম্মেলনের পিপলস অ্যাডভোকেট মনোনীত করা হয়েছে। তিনি বিশ্বনেতাদের সামনে জলবায়ু পরিস্থিতি নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভাষণ দেবেন।

এ ছাড়া সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা জলবায়ু বিষয়ে সোচ্চার তরুণদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন এবং বিশ্বব্যাপী তাঁদের কাজ সম্পর্কে জানবেন। সুইডিশ তরুণী গ্রেটা থুনবার্গ জলবায়ু সম্মেলন উপলক্ষে ৫ নভেম্বর (শুক্রবার) বিক্ষোভে যোগ দিতে গ্লাসগো শহরে উপস্থিত হবেন বলে জানিয়েছেন।

সম্মেলন উপলক্ষ্যে আন্দোলন বিক্ষোভের ফলে উত্তপ্ত পরিস্থিতি এড়াতে নেওয়া হয়েছে বাড়তি নিরাপত্তা ব্যবস্থা। যুক্তরাজ্যের বিভিন্ন জায়গা থেকে আসা বাড়তি ১০ হাজার পুলিশ প্রতিদিন গ্লাসগোতে দায়িত্ব পালন করবেন।

জলবায়ু সম্মেলনকে কেন্দ্র করে হোটেল ভাড়া অনেকগুণ বেড়ে গেছে। সম্মেলন চলাকালে ৪২ ব্রিটিশ পাউন্ডের একটি কক্ষ এক হাজার ৪০০ পাউন্ড দাম হাঁকা হচ্ছে।

দুই শয্যাকক্ষের একটি বাসা দুই হাজার মার্কিন ডলার ভাড়া দাবি করায় এক এয়ারবিএনবি হোস্টকে কপ-২৬ চলাকালীন কক্ষ ভাড়া দেওয়া থেকে নিষিদ্ধ করেছে ব্যক্তিগত ঘরবাড়ি ভাড়ায় দেওয়ার অ্যাপভিত্তিক কোম্পানিটি। সুযোগ নিয়ে ৪০০ শতাংশ ভাড়া বাড়িয়ে বিজ্ঞাপন দিচ্ছিলেন ওই বাড়িওয়ালা।

২০২০ সালে গ্লাসগোতে এ সম্মেলন হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু, করোনা মহামারির কারণে তা পেছানো হয়। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও এ সম্মেলনে যোগ দেওয়ার উদ্দেশে আজ রোববার সকালে ঢাকা ছেড়েছেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.