‘খান পরিবার’ বলেই টার্গেটে ছিলো আরিয়ান

মাদক কাণ্ডে শাহরুখ খানের পুত্র আরিয়ান খানের গ্রেপ্তার নিয়ে রীতিমতো বিস্ফোরণ ঘটালেন জম্মু ও কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি। তার অভিযোগ, পদবি খান বলেই টার্গেট করা হচ্ছে আরিয়ানকে। নিজেদের কোর হিন্দুত্ববাদী ভোটব্যাংককে সন্তুষ্ট করতে মুসলিমদের টার্গেট করছে কেন্দ্রের বিজেপি সরকার।

লখিমপুর খেরির কৃষক হত্যার প্রসঙ্গ তুলে এনে পিডিপি নেত্রী এদিন দাবি করেছেন, ”কেন্দ্রীয় সরকারের উচিত স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর ছেলের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করা। সেসব না করে ওরা ২৩ বছরের একটি যুবকের পিছনে পড়ে রয়েছে। কারণ, তার পদবি খান। বিজেপির হিন্দুত্ববাদী ভোটব্যাংকের বিকৃত ইচ্ছাপূরণের জন্য এদেশে মুসলিমদের নিশানা করা হচ্ছে।” মাদক কাণ্ডে এর আগে অনেকেই শাহরুখ পুত্রের পাশে দাঁড়িয়েছেন। আকার ইঙ্গিতে বোঝানোর চেষ্টা করেছেন মুসলিম বলেই টার্গেট করা হচ্ছে তাকে। কিন্তু কেউই এভাবে সরাসরি বিজেপিকে আক্রমণ করেননি।

শনিবার মুম্বইয়ের বিলাসবহুল ক্রুজ থেকে আটক করা হয় শাহরুখপুত্র আরিয়ান এবং তার সঙ্গীদের। মাদক কাণ্ডে জড়িত আরিয়ান, এই অভিযোগে রবিবার তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। প্রথমে নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর হেফাজতে ছিলেন আরিয়ান, মুনমুন ধামেচা, আরবাজ মার্চেন্টরা। শুক্রবার ধৃতদের বিচারবিভাগীয় হেফাজতের নির্দেশ দেওয়া হয়। তবে আরিয়ানের অন্তর্বর্তী জামিনের শুনানি চলে শনিবার। সোমবারও এই সংক্রান্ত শুনানি হয়। কিন্তু স্বস্তি মেলেনি। জামিন পায়নি শাহরুখপুত্র। তাকে বুধবার পর্যন্ত হেফাজতেই থাকতে হবে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.