ইতালির সমর্থকদের উপর ইংল্যান্ড সমর্থকদের হামলা

ইউরো কাপের শিরোপা ঘরে রাখতে ইতালির মুখোমুখি হয়ে সামর্থ্যের সবটুকু নিংড়ে দিয়েছেন ফাইনাল ম্যাচের স্বাগতিক দল ইংল্যান্ডের সমর্থকরা! কিন্তু এ ম্যাচের আগে মাঠের বাইরে সহিংসতায় জড়ান ইংল্যান্ডের সমর্থকরা।

রোববার রাতে ইতালির মুখোমুখি হয় ইংল্যান্ড। ম্যাচটি হয় ইংলিশদের ঢেরা লন্ডনের ওয়েম্বলি স্টেডিয়ামে। এই ম্যাচে বাজিমাত করেছে ইতালি। ২০১৮ বিশ্বকাপের বাছাইপর্ব উতরাতে না পারা দলটি ১৯৬৮ সালের পর আবার ইউরোপ সেরার স্বাদ পেয়েছে। ফাইনালে তারা টাইব্রেকারে ৩-২ গোলে হারায় ইংল্যান্ডকে।

এ ম্যাচের আগে মাঠের বাইরে সহিংসতায় জড়ান ইংল্যান্ডের সমর্থকরা। টিকিট না থাকার পরেও স্বাগতিক দর্শকরা কাতারে ওয়েম্বলির বাইরে জড়ো হয়ে জোরপূর্বক স্টেডিয়ামে ঢোকার চেষ্টা করেন। পরে বাধাপ্রাপ্ত হলে বিয়ারের বোতল ছুড়ে মারেন। ফাইনাল ম্যাচের আগে মদ্যপ অবস্থায় স্টেডিয়ামের বাইরে বাসে তাণ্ডব চালায় অনেক সমর্থক। এমন কি ইতালি থেকে ফাইনাল খেলা দেখতে আসা সমর্থকদের উপরেও চড়াও হন বেশকিছু উগ্র সমর্থক।

আগেই স্টেডিয়াম কর্তৃপক্ষ থেকে জানানো হয়েছিল, টিকিট বিহীন দর্শকরা যেন ওয়েম্বলি থেকে দূরে ফ্যান জোনে ম্যাচ উপভোগ করেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে শেষমেশ লন্ডন মেট্রোপলিটন পুলিশ মাঠে নামে। স্টেডিয়ামে কর্তৃপক্ষের অনুরোধে বিশৃঙ্খল জনতাকে বাগে আনতে বিশাল পুলিশ বাহিনী নামাতে হয়। স্টেডিয়ামের পাশেই লেস্টার স্কোয়ারে বানানো হয়েছিল ফ্যানজোন। যাতে সমর্থকরা খেলা উপভোগ করতে পারেন। তবে সেই ফ্যান জোনে সমর্থকদের তান্ডব চলার পর সেটি ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.