ইউরোর সেমিফাইনাল ও ফাইনালে গ্যালারিতে থাকবেন ৬০ হাজারের বেশি দর্শক

জমে উঠেছে ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপের লড়াই। সময় গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে এটি এগিয়ে যাচ্ছে সমাপ্তির পথে। টুর্নামেন্টের মাঝপথে দর্শকদের জন্য সুখবর দিয়েছে ইংল্যান্ড। করোনাভাইরাসের কারণে এবারের ইউরোতে বিভিন্ন স্টেডিয়ামে দর্শক সংখ্যা সীমিত করে দিয়েছে ইউরোপিয়ান ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা। তবে সেমিফাইনাল ও ফাইনালে লন্ডনের ওয়েম্বলি স্টেডিয়ামে দর্শকসংখ্যা বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে যুক্তরাজ্য সরকার।

সবকিছু ঠিক থাকলে ৬০ হাজারের বেশি দর্শক গ্যালারিতে বসে ম্যাচ তিনটি দেখতে পারবে। অর্থাৎ, ওয়েম্বলি স্টেডিয়ামটির ধারণক্ষমতার ৭৫ শতাংশ দর্শক মাঠে থাকবে। আগামী ১১ জুলাই অনুষ্ঠিত হবে মহাদেশীয় প্রতিযোগিতাটির ফাইনাল।

এক্ষেত্রে অবশ্য একটি শর্ত জুড়ে দেওয়া হয়েছে। ম্যাচ তিনটির সকল টিকেটধারীর কোভিড-১৯ পরীক্ষায় নেগেটিভ সনদ অথবা টিকা নেয়ার প্রমাণ থাকতে হবে। এছাড়া টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিতে হবে ম্যাচের ১৪ দিন আগে। যুক্তরাজ্যে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় ইতালির প্রধানমন্ত্রী মারিও দ্রাগি গত সোমবার লন্ডন থেকে ফাইনাল সরিয়ে নেয়ার আহ্বান জানিয়েছিলেন। কিন্তু এর পর দিনই এলো দর্শক বাড়ানোর ঘোষণা।

ওয়েম্বলিতে গ্রুপ পর্বের তিনটি ম্যাচ ও ২৬ জুন ইতালি ও অস্ট্রিয়ার শেষ ষোলোর ম্যাচের জন্য সর্বোচ্চ সাড়ে ২২ হাজার দর্শক প্রবেশ করার অনুমতি আছে। তবে ২৯ জুন শেষ ষোলোর আরেক ম্যাচের জন্য সংখ্যাটা ৪০ হাজার হবে। ওই ম্যাচে খেলতে পারে ইংল্যান্ড। ম্যাচগুলো দেখতে বিদেশি দর্শকদের লন্ডনে ভ্রমণের ক্ষেত্রে কোয়ারেন্টিন বিধিনিষেধ শিথিল করার জন্য এরই মধ্যে যুক্তরাজ্য সরকারের সঙ্গে আলোচনা করছে উয়েফা। তবে এ বিষয়ে বিধি-নিষেধ পরিবর্তনের কোনো কথা বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়নি।

দর্শকসংখ্যা বাড়ানোর বিষয়টিকে স্বাগত জানিয়ে উয়েফা সভাপতি আলেকসান্দের চেফেরিন যুক্তরাজ্য সরকারকে ধন্যবাদ দিয়েছেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.