আনন্দ অশ্রু নিয়ে মেসির শিরোপা উৎসব

অবশেষে হাতে আন্তর্জাতিক শিরোপা উঠলো মেসির। বার্সেলোনা মহাতারকার ক্লাব ফুটবলে সম্ভাব্য সব শিরোপায় চুমু দিয়েছেন। আক্ষেপ ছিল জাতীয় দলের হয়ে একটি টুর্নামেন্টে জয়ের। বারবার ব্যর্থ হতে হয়েছে। ক্যারিয়ারের পুরোটা সময় বিশ্ব ফুটবল শাসন করলেও আর্জেন্টিনার জার্সিতে শিরোপা বঞ্চিত হয়েছেন। এবার আর সমর্থকদের কষ্ট দেননি। লিওনেল মেসি নেতৃত্বাধীন দলটি কোপা আমেরিকার চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। তাও আবার চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ব্রাজিলকে হারিয়ে।

রোবাবার (১১ জুলাই রিও ডি জেনেরিওতে ২২ মিনিটের মাথায় অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়া গোল করেন। রদ্রি ডি পলের কাছ থেকে বল পেয়ে জালে জড়াতে ভুল করেননি প্যারিস সেন্ট জার্মেই (পিএসজি) তারকা।

প্রথমার্ধে গোল হজমের পর আর খেলায় ফিরতে পারেনি তিতের শিষ্যরা। চেষ্টায় কমতি ছিল না নেইমারদের। আর্জেন্টিনার গোলরক্ষক এমি মার্টিনেজ তাদের সব পরিকল্পনা নস্যাৎ করে দেন।

২০০৫ সালে জাতীয় দলের জার্সিতে অভিষেক মেসির। দুই বছরের মাথায় কোপা আমেরিকার ফাইনালে উঠেছিল তার দল। ব্রাজিলের কাছে ৩-০ ব্যবধানে হেরে কাঁদতে হয়েছিল আর্জেন্টিনাকে। পরের বার আরও করুণ অবস্থা হয়। ২০১৪ বিশ্বকাপের ফাইনালের অতিরিক্ত সময়ে গোল হজম করে হার মানতে হয় জার্মানির কাছে। ২০১৫ ও ২০১৬ সালে ফাইনালে টানা দুইবার চিলির বিপক্ষে পরাস্ত হয়ে কোপার শিরোপার খুব কাছে গিয়েও ফিরতে হয়।

Leave A Reply

Your email address will not be published.